1. shahalom.socio@gmail.com : admin :
  2. dbcjournal24@gmail.com : ডিবিসি জার্নাল ২৪ : ডিবিসি জার্নাল ২৪
  3. banglarmukh71@gmail.com : admin1 :
  4. : :
শনিবার, ২৫ মে ২০২৪, ০২:৪৩ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
কুমিল্লায় নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে দৈনিক মুক্ত খবরের ২১তম বর্ষ উদযাপিত দাউদকান্দিতে বিকেএ কুমিল্লা (প.) জেলার কৃতি শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা বুড়িচংয়ে নারীকে ডেকে নিয়ে গলা কেটে হত্যা আটক ৩ এসএসসি ও সমমান পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের অভিনন্দন জানিয়েছেন বাংলাদেশ যুব অধিকার পরিষদ নেতা বুড়িচংয়ে যাকাত ও ছদাকাত ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে অসহায়ের মাঝে প্রকল্প বিতরণ বুড়িচংয়ে কৃষি শ্রমিক ইউনিয়নের র‍্যালী অনুষ্ঠিত সাত গ্রামের সমর্থিত চেয়ারম্যান প্রার্থী এড. রেজাউল করিম বুড়িচং উপজেলার ষোলনল ইউনিয়ন বিএনপির ঈদ পুনর্মিলনী আমরা আছি মানবতার সেবায় সংগঠনের উদ্যোগে ঈদ সামগ্রী বিতরণ সুলতানপুর ব্যাটালিয়ন ৬০ বিজিবি’ উদ্যোগে দুস্থ ও অসহায় মানুষের মাঝে ইফতার এবং খাদ্য সামগ্রী বিতরণ

ঢাকার প্রবেশদ্বারে পুলিশের কড়া চেকপোস্ট

  • আপডেট করা হয়েছে শুক্রবার, ৯ ডিসেম্বর, ২০২২
  • ১৬৯ বার পড়া হয়েছে
  • স্টাফ রিপোর্টার

১০ ডিসেম্বর শনিবার বিএনপির ঢাকা বিভাগীয় গণসমাবেশ কেন্দ্র করে রাজধানীর প্রবেশদ্বারগুলোতে সতর্ক অবস্থানে রয়েছে পুলিশ। প্রায় প্রতিটি প্রবেশদ্বারেই বসানো হয়েছে তল্লাশি চৌকি। ঢাকায় প্রবেশ করছেন এমন ব্যক্তিদের তল্লাশিসহ নানা ধরনের প্রশ্ন করা হচ্ছে। বিভিন্ন জেলা থেকে আগত দূরপাল্লার বাস, মাইক্রো বাস, প্রাইভেট কার, মোটরসাইকেলেও তল্লাশি চালানো হচ্ছে বলে খবর পাওয়া গেছে। এতে হয়রানির শিকার হচ্ছেন ঢাকায় আগত সাধারণ যাত্রী। পুলিশ বলছে, ১৫ তারিখ পর্যন্ত বিশেষ অভিযানের অংশ হিসেবে এই সতর্কতা।
রাজধানীর গাবতলী, যাত্রাবাড়ী, উত্তরা ও পোস্তগোলা-বাবুবাজার এলাকায় গতকাল বৃহস্পতিবার এমন চিত্র দেখা গেছে।
গাবতলী এলাকা দিয়ে ঢাকায় প্রবেশ করার মুখে আমিনবাজার ব্রিজের ওপর বসানো হয়েছে পুলিশের নিরাপত্তা চৌকি। সেখানে বিভিন্ন যানবাহন ও হেঁটে আসা যাত্রীদের তল্লাশিসহ কোথায় যাচ্ছেন, কেন যাচ্ছেন, কোন এলাকা থেকে এসেছেন, কতদিন থাকবেন এ ধরনের নানা প্রশ্ন করা হচ্ছে। কোনো কোনোক্ষেত্রে বিভিন্ন জেলা থেকে আসা দূরপাল্লার বাস থামিয়েও তল্লাশি করা হচ্ছে। এ দিন সকাল থেকে সায়েদাবাদ, মতিঝিল, কাকরাইলসহ রাজধানীর বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ স্থানে পুলিশকে সতর্ক অবস্থানে দেখা গেছে। এ দিকে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের প্রবেশের অংশে (দক্ষিণ অংশ) কামাল ম্যানশনের সামনে বিপুলসংখ্যক পুলিশ অবস্থান নিয়ে যাত্রীদের তল্লাশি চালাচ্ছে। এখানে পথচারী থেকে শুরু করে রিকশা আরোহীদের তল্লাশি করা হচ্ছে।
এ ব্যাপারে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) কমিশনার খন্দকার গোলাম ফারুক সাংবাদিকদের বলেন, এটি বিশেষ অভিযানের কারণে নিয়মিত চেকপোস্ট। ১ থেকে ১৫ ডিসেম্বর পর্যন্ত বিশেষ অভিযান চলছে। ১৪, ১৬ ও ২৫ ডিসেম্বর তিনটি গুরুত্বপূর্ণ দিন রয়েছে। এ সময়ে কোনো ধরনের নাশকতার ঘটনা যাতে না ঘটে সে জন্য নিরাপত্তাব্যবস্থার অংশ হিসেবে চেকপোস্ট বসানো হয়েছে। তবে এখান থেকে কাউকে ঢাকায় আসাতে বাধা দেয়া বা হয়রানি করা হচ্ছে না।
নারায়ণগঞ্জ পুলিশের ‘সর্বোচ্চ সতর্কতা’
নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি জানায়, আগামীকাল ১০ ডিসেম্বর রাজধানী ঢাকায় বিএনপির গণসমাবেশকে কেন্দ্র করে নারায়ণগঞ্জে সর্বোচ্চ সতর্কাবস্থা বিরাজ করছে। বিশেষ করে সতর্ক অবস্থানে রয়েছে পুলিশ প্রশাসন। মহাসড়কে বাসে বাসে চলছে তল্লাশি। বিএনপির নেতাকর্মীদের দাবি- সমাবেশকে কেন্দ্র করেই এই তল্লাশি ও তৎপরতা বৃদ্ধি করছে পুলিশ। যাতে করে বিএনপির কোনো নেতাকর্মী বাসা থেকে বের হতে না পারে। তবে পুলিশ বলছে এটা তাদের নিয়মিত দায়িত্ব। তারই অংশ হিসেবে তারা এই তল্লাশি করছে।
নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ সুপার (এসপি) গোলাম মোস্তফা রাসেল বলেন, চেকপোস্ট বসানো আজ তো নতুন নয়। আমরা মাঝে মধ্যেই চেকপোস্ট বসিয়ে থাকি। এর মধ্যে কেউ যদি নাশকতা করার পরিকল্পনা করে তাহলে তো সে পুলিশের তল্লাশি ভয় পাবেই। এটা আমাদের রুটিন ওয়ার্ক।
বৃহস্পতিবার সকাল থেকেই শহরের প্রাণকেন্দ্র চাষাঢ়া এলাকায় পুলিশের চেকপোস্ট বসিয়ে তল্লাশি করা হচ্ছে। সেই সাথে চাষাঢ়া মোড়ে প্রস্তুত রাখা হয়েছে সাঁজোয়া যান ও জল কামান। পাশাপাশি ক্ষণে ক্ষণে শহরজুড়ে চলছে পুলিশের মহড়া।
সরেজমিন দেখা যায়, শহরের চাষাঢ়া এলাকায় যারাই আসছেন তাদেরকেই চেক করা হচ্ছে। বিভিন্ন যানবাহনের যাত্রীদেরও নামিয়ে সময় নিয়ে সারা শরীরজুড়ে তল্লাশি করছেন পুলিশের সদস্যরা। সাথে থাকা মোবাইলও চেক করছেন তারা। যাদের গতিবিধি সন্দেহজনক মনে হচ্ছে অথবা যাদের মোবাইলে বিএনপি কিংবা সরকারবিরোধী কোনো বিষয় পাওয়া যাচ্ছে তাদেরকে কিছু সময়ের জন্য আটকে রেখে নানা বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। এতে করে অনেকেই হয়রানিরও শিকার হচ্ছেন।
নারায়ণগঞ্জ মহানগর বিএনপির আহ্বায়ক অ্যাডভোকেট সাখাওয়াত হোসেন খান বলেন, সরকার কোনো কর্মসূচির কথা শুনলেই ভয় পায়। আগামী ১০ ডিসেম্বর বিএনপির সমাবেশকে কেন্দ্র করে বিএনপির নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে গায়েবি মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি করা হচ্ছে। সরকার পুলিশ প্রশাসনকে ব্যবহার করছে বিএনপির বিরুদ্ধে। তবে তারা যতই বাধা দিক আমাদের বিএনপির নেতাকর্মীদের আটকিয়ে রাখতে পারবে না। সরেজমিন গিয়ে দেখা যায়, সকাল থেকেই ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের সিদ্ধিরগঞ্জের মৌচাক, সোনারগাঁওয়ের কাঁচপুর ও মেঘনাঘাট টোল প্লাজায় তিনটি পয়েন্টে চেকপোস্ট বসিয়েছে পুলিশ। চেকপোস্টগুলোতে দায়িত্বরত পুলিশ সদস্যরা যাত্রী ও চালকরা কে কোথায় যাচ্ছে তা জানতে চান। বাসে যাত্রীদের ব্যাগ, ব্যক্তিগত গাড়ির ভেতর ও পেছনে ব্যাকডালা তল্লাশি চালানো হচ্ছে।
টঙ্গী ব্রিজে পুলিশের তল্লাশি
গাজীপুর মহানগর প্রতিনিধি জানান, শনিবার বিএনপির সমাবেশকে কেন্দ্র করে গাজীপুরে রাজধানীর প্রবেশমুখ টঙ্গী ব্রিজে তল্লাশি চৌকি বসিয়েছে পুলিশ। সেখানে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়ক দিয়ে রাজধানীতে প্রবেশের সময় যানবাহনে তল্লাশি চালানো হচ্ছে। গতকাল বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার পর এ তল্লাশি আরো জোরদার করা হয়। এতে পরিবহন থামিয়ে তল্লাশির কারণে ঢাকামুখী মহাসড়কে তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়। রাত সাড়ে ৯টায় এ রিপোর্ট পাঠানোর সময় আব্দুল্লাহপুর থেকে টঙ্গীর গাজীপুরা পর্যন্ত প্রায় চার কিলোমিটার দীর্ঘ যানজট ছিল। পুলিশের এ তল্লাশির কারণে সাধারণ যাত্রী বিশেষ করে নারী ও শিশু যাত্রীদের ভীতসন্ত্রস্ত হতে দেখা গেছে।
সরেজমিন ঘুরে দেখা যায়, সকাল থেকেই ঢাকামুখী সড়কে অন্যান্য দিনের তুলনায় গণপরিবহনের সংখ্যা ছিল কম। পুলিশ ব্যক্তিগত গাড়ি, সিএনজি, মোটরসাইকেল থামিয়ে তল্লাশি করছে। দূরপাল্লার বাসে তল্লাশি ছাড়াও মহাসড়কের পাশ দিয়ে ঢাকামুখী পথচারীদের কাছেও চাওয়া হচ্ছে পরিচয়পত্র।

শেয়ার করুন

কমেন্ট করুন

আরো সংবাদ পড়ুন